আর পাত্তা পাবেনা Tata Nano, সেরা মাইলেজ এবং অবিশ্বাস্য ফির্চাস সহ লঞ্চ হয়ে গেল দামদার ইলেকট্রিক গাড়ি

সমস্ত জল্পনা সমাপ্তি ঘটিয়ে অবশেষে ভারতের বাজারে লঞ্চ হয়ে গেল সেরা ইলেকট্রিক গাড়ি Cooper SE। ভারতের বাজারে লঞ্চ হওয়ার পর থেকে গাড়ি প্রেমীদের দ্বারা আলোচনায়…

Published By: Saikat Sarkar | Published On:
Advertisements

সমস্ত জল্পনা সমাপ্তি ঘটিয়ে অবশেষে ভারতের বাজারে লঞ্চ হয়ে গেল সেরা ইলেকট্রিক গাড়ি Cooper SE। ভারতের বাজারে লঞ্চ হওয়ার পর থেকে গাড়ি প্রেমীদের দ্বারা আলোচনায় রয়েছে এই দুর্দান্ত ইলেকট্রিক গাড়িটি। অবিশ্বাস্য ফির্চাস এবং কিলার লুক দেখে ইতিমধ্যে অনেকেই গাড়িটি কেনার জন্য লাইন দিচ্ছেন। তবে শুরুতেই আমরা আপনাদের জানিয়ে রাখি, আপনার কাছে শুধুমাত্র টাকা থাকলেই অবিশ্বাস্য বৈশিষ্টের এই ইলেকট্রিক গাড়িটি ক্রয় করতে পারবেন না। কারণ কোম্পানির তরফ থেকে প্রথমেই জানানো হয়েছে, দুর্দান্ত এই গাড়িটির কয়েকটি মাত্র ইউনিট বিক্রি করা হবে ভারতের বাজারে।

Advertisements

কেন এই গাড়িটি কেনার জন্য আগ্রহ দেখাচ্ছেন গাড়ি প্রেমীরা?

Advertisements

এই মুহূর্তে ভারতের বাজারে Tata ইলেকট্রিক গাড়ির জগতে একছত্র অধিপত্য বিস্তার করছে। লো-বাজেটের ইলেকট্রিক গাড়ি থেকে শুরু করে প্রিমিয়াম মডেলের ইলেকট্রিক গাড়ি, কম মূল্যে গ্রাহকদের হাতে তুলে দিচ্ছে তারা। তবে Cooper SE EV গাড়িটি মূলত Cooper SE-এর স্ট্যান্ডার্ড সংস্করণ। যা মাত্র কয়েকটি ইউনিট বিক্রি করা হবে ভারতের বাজারে। প্রথমেই আপনাদের জানিয়ে রাখি, গাড়িটির অভ্যন্তরীণ সজ্জা এর প্রিমিয়াম স্ট্যান্ডার্ড বহন করবে। এই গাড়িটি চার্জড এডিশন চিলি রেড কালার ভেরিয়েন্টে লঞ্চ করা হয়েছে। যার ছাদে একটি সাদা ফিনিশ, উইং মিরর, আলোর চারপাশ, হ্যান্ডলগুলি এবং লোগো রয়েছে। যা একে নিঃসন্দেহে বাজারের সেরা ইলেকট্রিক গাড়ি হিসেবে পরিচিতি দিয়েছে।

শুধু দুর্দান্ত ডিজাইন নয়, যদি শক্তিশালী এই গাড়িটির ব্যাটারি সম্পর্কে বলি, তবে এতে 32.6kWh-এর শক্তিশালী ব্যাটারি প্যাক ব্যবহার করা হয়েছে। যার কারনে গাড়িটি 184hp শক্তি এবং 270Nm টর্ক জেনারেট করতে পারে। গাড়িটি একবার পূর্ণ চার্জে 300KM মাইলেজ দিতে সক্ষম বলেও জানানো হয়েছে কোম্পানির তরফ থেকে। শুধু তাই নয়, এর শক্তিশালী মোটরের কারনে মাত্র 7.3 সেকেন্ডে গাড়িটি সর্বোচ্চ 100 কিলোমিটার গতিতে ছুটতে পারে। শক্তিশালী এই ব্যাটারিটিতে চার্জ করার জন্য সুপারফাস্ট চার্জিং সাপোর্ট প্রদান করা হয়েছে। যার দ্বারা মাত্র 36 মিনিটে 80% চার্জ করা সম্ভব। যদি দামের কথা বলি, তবে লিমিটেড এডিশনের এই গাড়িটির বিক্রয় মূল্য এক্স শোরুমে 55 লাখ টাকা ধার্য করা।

Advertisements