দেরি করে ফেলেছেন, এবার নেমে আসবে আয়কর বিভাগের শাস্তির খাঁড়া

বেতনভোগী ব্যক্তিদের জন্য আয়কর রিটার্ন দাখিলের শেষ তারিখ ছিল চলতি বছরের ৩১ জুলাই। ২০২২-২৩ আর্থিক বছরের আয় এই তারিখের মধ্যে প্রকাশ করার কথা ছিল। তবে…

Published By: Pritam Santra | Published On:
Advertisements

বেতনভোগী ব্যক্তিদের জন্য আয়কর রিটার্ন দাখিলের শেষ তারিখ ছিল চলতি বছরের ৩১ জুলাই। ২০২২-২৩ আর্থিক বছরের আয় এই তারিখের মধ্যে প্রকাশ করার কথা ছিল। তবে এখন সেই তারিখ পেরিয়ে গেছে। এই পরিস্থিতিতে কেউ আয়কর রিটার্ন দাখিল করে ২০২২-২৩ অর্থ বছরের আয় প্রকাশ করলে তাকেও লেট ফি দিতে হবে।

Advertisements

এরই মধ্যে আয়কর বিভাগের পক্ষ থেকে একটি গুরুত্বপূর্ণ তথ্য শেয়ার করা হয়েছে, যা সাধারণ মানুষের জন্যও খুব জরুরী হতে পারে। ২০২৩ সালের এপ্রিল থেকে জুন মাসের মধ্যে দেশে আয়কর রিটার্ন দাখিলের সংখ্যা বার্ষিক ভিত্তিতে প্রায় দ্বিগুণ হয়ে ১.৩৬ কোটিতে দাঁড়িয়েছে। আয়কর রিটার্ন দাখিলের শেষ তারিখ ছিল ৩১ জুলাই ২০২৩। ২০২২-২৩ অর্থ বর্ষের আয়কর রিটার্ন দাখিলের শেষ তারিখ ৩১ অক্টোবর।

Advertisements

জুলাই মাসে ৫.৪১ কোটিরও বেশি রিটার্ন দাখিল করা হয়েছিল। আয়কর বিভাগের তথ্য অনুযায়ী, ২০২৩-২৪ অর্থ বছরের জন্য ৩১ জুলাই পর্যন্ত রেকর্ড ৬.৭৭ কোটি আয়কর রিটার্ন দাখিল করা হয়েছে। এর মধ্যে ৫৩.৬৭ লক্ষ মানুষ প্রথমবারের জন্য আয়কর রিটার্ন দাখিল করেছেন। অনলাইন আইটিআর ফাইলিং প্ল্যাটফর্মে পাওয়া তুলনামূলক তথ্য অনুসারে, ২০২২-২৩ সালের এপ্রিল-জুন মাসে ৭০.৩৪ লক্ষেরও বেশি আয়কর রিটার্ন দাখিল করা হয়েছে। ২০২৩-২৪ সালের এপ্রিল-জুন মাসে এই সংখ্যা ৯৩.৭৬ শতাংশ বেড়ে দাঁড়িয়েছে ১.৩৬ কোটির ওপরে।

Income tax return

তথ্য অনুযায়ী, এবার ২৬ জুন পর্যন্ত এক কোটি আয়কর রিটার্ন দাখিল করা হয়েছে, গত বছরের ৮ জুলাই পর্যন্ত এক কোটি আয়কর রিটার্ন দাখিল করা হয়েছে। একই সঙ্গে যারা এখনও আয়কর রিটার্ন দাখিল করেননি, তারা ৩১ ডিসেম্বর ২০২৩ পর্যন্ত আয়কর রিটার্ন দাখিল করতে পারবেন। তবে এর জন্য মানুষকে লেট ফি দিতে হবে। পেনাল্টি দেওয়ার পরে তারা আইটিআর ফাইল করতে পারবেন।

Advertisements