মার্কেট ঘুরিয়ে দেওয়ার মতো গাড়ি আনছে TATA, মাইলেজ দেবে ৫০০ কিমি, তাক লাগানো ডিজাইন

বাজারে পেট্রোল-ডিজেলের নাম এখনও আকাশ ছোঁয়া। এই পরিস্থিতিতে নিজেদের পকেট বাঁচাতে অনেকেই বেছে নিচ্ছেন বিদ্যুৎ চালিত গাড়ি। ক্রমবর্ধমান চাহিদার পরিপ্রেক্ষিতে অনেক বড় অটোমোবাইল নির্মাতা কোম্পানি…

Published By: Pritam Santra | Published On:
Advertisements

বাজারে পেট্রোল-ডিজেলের নাম এখনও আকাশ ছোঁয়া। এই পরিস্থিতিতে নিজেদের পকেট বাঁচাতে অনেকেই বেছে নিচ্ছেন বিদ্যুৎ চালিত গাড়ি। ক্রমবর্ধমান চাহিদার পরিপ্রেক্ষিতে অনেক বড় অটোমোবাইল নির্মাতা কোম্পানি বৈদ্যুতিক যানবাহন চালু করেছে। ভারতের শীর্ষস্থানীয় গাড়ি নির্মাতা টাটা মোটরস এই বিষয়ে সবচেয়ে এগিয়ে রয়েছে। বাজারে কোম্পানির দুটি বৈদ্যুতিক গাড়ি বেশ জনপ্রিয় – টাটা Altroz Ev এবং টাটা Nexon Ev। সেই সঙ্গে আগামী দিনে যুক্ত হতে চলেছে আরও একটি গাড়ি।

Advertisements

টাটা মোটরস ভারতীয় বাজারে একটি নতুন বৈদ্যুতিক গাড়ি লঞ্চ করার প্রস্তুতি নিচ্ছে। অটো এক্সপোতে এই গাড়ির কনসেপ্ট দেখানো হয়েছিল। কথা হচ্ছে Tata Avinya EV সম্পর্কে। টাটা মোটরস এই নতুন বৈদ্যুতিক কনসেপ্ট গাড়িটির নামকরণ করেছে একটি সংস্কৃত শব্দ থেকে, যায় অর্থ ‘উদ্ভাবন’। এই এসইউভিটিকে আধুনিক ডিজাইন দেওয়া হয়েছে। আধুনিক লুকের সঙ্গে দেওয়া হবে আধুনিক সব ফিচার। ভবিষ্যতের দৃষ্টিকোণ থেকে এই গাড়িটিতে সমস্ত বৈশিষ্ট্য রয়েছে।

Advertisements

Tata Avinya EV – এর সম্ভাব্য কিছু ফিচার – 

গাড়ির সব লাইট হবে এলইডি। গাড়ির স্টিয়ারিং হুইলেও থাকবে ডিসপ্লে। গাড়িটিতে বাটারফ্লাই দরজা রয়েছে, যার অর্থ সামনের দরজাগুলি সামনে থেকে খোলা হয় এবং পিছনের দরজাগুলি পিছন থেকে খোলা যায়। অনেকটা রোলস রয়েস গাড়ির মতো। এই বৈদ্যুতিক গাড়িতে আপনি হ্যাচব্যাক, এমপিভি এবং ক্রসওভারের সংমিশ্রণ পাবেন। Avinya EV কোম্পানির জেনারেশন ৩ আর্কিটেকচারের উপর ভিত্তি করে তৈরি। এতে বড় ব্যাটারির প্যাক দিয়েছে প্রতিষ্ঠানটি। দাবি করা হয়েছে, ৫০০ কিলোমিটার পর্যন্ত রেঞ্জ নিয়ে লঞ্চ হবে এই গাড়ি।

TATA avinya ev

এর পাশাপাশি আসন্ন এই গাড়িতে পাবেন ডুয়াল ইলেকট্রিক মোটর সেটআপ। যার সাহায্যে এই গাড়িটি মাত্র ৪ সেকেন্ডে ১০০ কিমি প্রতি ঘণ্টা সর্বোচ্চ গতি ধরতে পারবে বলে আশা করা হচ্ছে। বৈদ্যুতিক গাড়িটিতে একটি অ্যারোমা ডিফিউজার, রোটেট করার মতো সিট এবং একটি প্যানোরামিক সানরুফ রয়েছে। আন্তর্জাতিক বাজারেও এই গাড়িটি বিক্রি করতে পারে TATA। এর দাম এখনও প্রকাশ করা হয়নি। যেহেতু ইলেকট্রিক গাড়ি, তাই অনুমান করা হচ্ছে এর দাম হতে পারে প্রায় ২০ লক্ষ টাকা।

Advertisements